সময়কাল নিউজ
সময়কাল নিউজ

গোলের ফেরিওয়ালার স্বপ্নের ফেরা

সময়কাল স্পোর্টস ডেস্ক : এই দিনটির অপেক্ষায় ছিল সারা বিশ্বের ম্যানইউর সমর্থকরা। ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর ‘দ্বিতীয় অভিষেক’ দেখার জন্য তাদের আর তর সইছিল না।

শনিবারের বিকালের ওল্ড ট্রাফোর্ডে তাদের স্বপ্নপূরণ হলো পর্তুগিজ মহাতারকার জোড়া গোলে। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে নিউক্যাসলের বিপক্ষে ম্যাচে লাল জার্সিতে স্বপ্নের অভিষেকে স্বরূপে আবির্ভূত হলেন গোলের ফেরিওয়ালা।

যে কাজটা সবচেয়ে ভালো পারেন রোনাল্ডো, সহজাত দক্ষতায় সেই কাজটাই করলেন দুদুবার। প্রথম গোল বিরতির বাঁশি বাজার কিছুক্ষণ আগে। দ্বিতীয় গোলটি দ্বিতীয়ার্ধে। ১২ বছর পর প্রাণের ক্লাবে ফিরে ৩৬-এর রোনাল্ডোও আগের মতো সজীব, প্রাণ প্রাচুর্যে ভরপুর। এতটুকু কমেনি তার গোল-ক্ষুধা।

প্রথম থেকে শেষ বাঁশি পর্যন্ত যৌবন গর্জনে উত্তাল ওল্ড ট্রাফোর্ড রোনাল্ডোয় এতটাই মোহাচ্ছন্ন হয়ে পড়েছিল যে, ম্যানইউর অপর দুই গোলদাতা ব্রুনো ফার্নান্দেজ ও জেসে লিনগার্ডকে নিয়ে ভাবতে তাদের বয়েই গিয়েছিল। জোড়া গোলে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে নিজের ফেরাটা লাল রঙে রাঙানো রোনাল্ডোর জন্য স্বপ্নপূরণের চেয়েও বেশি কিছু। ইংল্যান্ডজুড়ে ধন্য ধন্য রব উঠল- ওল্ড ট্রাফোর্ডে ফিরেছেন ‘দ্য কিং’। ম্যানইউর হয়ে সব মিলিয়ে তার গোলসংখ্যা এখন ১২০।

কাল শুধু রোনাল্ডোকে দেখতে ওল্ড ট্রাফোর্ডে এসেছিলেন ৭৪ হাজার দর্শক। বহুদিন ম্যানইউর ঘরের মাঠ এমন পল্লবিত হয়নি এত দর্শক সমাগমে। ম্যাচ শুরুর আগে পর্তুগিজ মহাতারকার সম্মানে সান্ধ্য-সঙ্গীতের আয়োজন করা হয়। রোনাল্ডোও মাঠে সুরের মূর্ছনা তোলেন। তিনজন ডিফেন্ডারকে ফাঁকি দিয়ে বুলেটগতির শটে তার প্রথম গোল মনে করিয়ে দেয়, কিছুই হারাননি তিনি। দ্বিতীয়টি ব্যাকহিলে। প্রথম গোলটি যদি রক সঙ্গীত হয়, দ্বিতীয়টি ধ্রুপদি। শেষ বাঁশি বাজার ২৫ মিনিট আগে তাকে তুলে লিনগার্ডকে মাঠে নামান ম্যানইউ কোচ ওলে গুনার সুলশার। ম্যাচ শেষ হওয়ার আগেই শেষ হয়ে যায়!

শনিবারের ফল

ম্যানইউ ৪ : ১ নিউক্যাসল

ক্রিস্টাল প্যালেস ৩ : ০ টটেনহাম

আর্সেনাল ১ : ০ নরউইচ

ম্যানসিটি ১ : ০ লেস্টার

সময়কাল নিউজ